ঢাকা   সোমবার ২১ অক্টোবর ২০১৯ | ৬ কার্তিক ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
Image Not Found!

সর্বশেষ সংবাদ

  আবরার হত্যা: অমিত সাহা ও রাফাত কারাগারে (আইন ও বিচার)        ভিয়েতনামের সঙ্গে বাণিজ্য বাড়ানোর আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর (জাতীয়)        বরিশালে দেওয়া বক্তব্যের ব্যাখ্যা দিলেন মেনন (রাজনীতি)        ভোলায় পুলিশের সঙ্গে ‘তৌহিদী জনতা’র সংঘর্ষ, নিহত ৪ (জেলার খবর)        খালেদার দেখা চান ঐক্যফ্রন্ট নেতারা (রাজনীতি)        আমরা সবাই যেন সতর্কতার সঙ্গে ব্যবস্থা নিই : সাঈদ খোকন (ঢাকা)        প্রধানমন্ত্রীর কাছে রুশ ভাষায় প্রকাশিত তিনটি বই হস্তান্তর (জাতীয়)        ক্যাসিনোবিরোধী অভিযান চলবেই: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী (জাতীয়)        তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তিতে বিশ্বে নেতৃত্ব দেবে বাংলাদেশ: জয় (জাতীয়)        সাগর-রুনি হত্যা মামলার তদন্ত কর্মকর্তাকে হাইকোর্টে তলব (আইন ও বিচার)      

বিএনপির আন্দোলন খাঁচায় বন্দি সিংহের গর্জন: তথ্যমন্ত্রী

Logo Missing
প্রকাশিত: 08:01:46 pm, 2019-04-11 |  দেখা হয়েছে: 1 বার।

আজ ডেক্সঃ বিএনপির আন্দোলনের হুমকি খাঁচায় আবদ্ধ সিংহের গর্জন বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক এবং তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ। গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউয়ে বাংলাদেশ আওয়ামী মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম লীগ ঢাকা মহানগর উত্তরের দ্বি-বার্ষিক সম্মেলনে তিনি এ মন্তব্য করেন। তথ্যমন্ত্রী বলেন, খালেদা জিয়া হাঁটুর ব্যথা নিয়েই দু’বার প্রধানমন্ত্রী ও একবার বিরোধী দলের দায়িত্ব পালন করেছেন। বিএনপি খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্য নিয়ে তামাশা করছে। সকাল-বিকেল একবার ফখরুল, একবার রিজভি খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্য নিয়ে সংবাদ সম্মেলন করেন। বিএনপির কাছে অনুরোধ, এই তামাশা থেকে বেরিয়ে আসেন। বিএনপি নেতা ড. মঈন খান আন্দোলন করে খালেদা জিয়াকে মুক্ত করা প্রসঙ্গে হাছান মাহমুদ বলেন, বিএনপির আন্দোলনের হুমকি খাঁচায় আবদ্ধ সিংহের গর্জনের মতো, যা দেখে মানুষ মজা পায়। আপনাদের আন্দোলনের হুমকি শুনে সবাই হাসি ঠাট্টা করে। বিএনপির চেয়ারপারসন খালেদা জিয়ার প্যারোলে মুক্তির বিষয়ে আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক বলেন, প্যারোলে মুক্তি জোর করে কাউকে দেওয়া যায় না। অভিযুক্ত ব্যক্তিকে সরকারের কাছে প্যারোলে মুক্তি চাইতে হয়। আমরা প্যারোলে মুক্তির বিষয়ে কিছু ভাবছি না। কেউ প্যারোল চাইলে, তখন দেখা যাবে। জিয়াউর রহমান প্রসঙ্গে তিনি বলেন, জিয়াউর রহমান যখন সেক্টর কমান্ডার হিসেবে মুক্তিযুদ্ধে ছিলেন, তখন খালেদা জিয়া আরাম আয়েশে ক্যান্টনম্যান্টে ছিলেন। এ থেকে বোঝা যায়, পাকিস্থানি বাহিনীর সঙ্গে জিয়াউর রহমানের যোগসাজশ ছিলো। তিনি বলেন, একসময় যে পাকিস্তান বাঙালিকে ভুখা বাঙালি বলতো, এখন সেই বাংলাদেশ সব সূচকে পাকিস্তান থেকে এগিয়ে গেছে। কিছুদিনের মধ্যে আমরা সূচকে ভারত থেকেও এগিয়ে যাবো। দ্বি-বার্ষিক সম্মেলনের উদ্বোধন করেন মুক্তিযোদ্ধা প্রজন্ম লীগের সভাপতি অ্যাডভোকেট আসাদুজ্জামান দুর্জয়। এতে সভাপতিত্ব করেন ঢাকা মহানগর প্রজন্ম লীগের সাবেক সভাপতি মনির হোসেন।