ঢাকা   ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২০ | ১৪ ফাল্গুন ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
Image Not Found!

সর্বশেষ সংবাদ

  ৭ মার্চ জাতীয় দিবস ঘোষণার নির্দেশ হাইকোর্টের (জাতীয়)        অনৈতিক সম্পর্কে বাধ্য করানোয় স্বামীকে হত্যা করে প্রতিশোধ (অপরাধ)        প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশেই পাপিয়া গ্রেফতার: ওবায়দুল কাদের (অপরাধ)        প্রধানমন্ত্রী স্বর্ণপদক পাচ্ছেন ১৭২ শিক্ষার্থী (শিক্ষা)        পিলখানা ট্র্যাজেডি: নিহতদের কবরে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা (জাতীয়)        বিরোধী দলকে হয়রানি ও ক্ষমতাসীনদের প্রতি নমনীয় দুদক: টিআইবি (বাংলাদেশ)        নিরাপদ খাদ্য আইন মেনে চলতে সতর্কতামূলক বিজ্ঞপ্তি (বাংলাদেশ)        এনু-রুপনের আরেক বাড়িতে অভিযান, পাঁচ সিন্দুক থেকে ২৬ কোটি টাকা উদ্ধার (জাতীয়)        পিলখানা হত্যার সুষ্ঠু তদন্ত করবে বিএনপি: ফখরুল (রাজনীতি)        জ্বর নিয়ে বাংলাদেশে এসে হাসপাতালে দক্ষিণ কোরিয়ার নাগরিক (জাতীয়)      

তাবিথের জন্য ভোট চাইলেন মির্জা ফখরুল

Logo Missing
প্রকাশিত: 12:12:04 am, 2020-01-21 |  দেখা হয়েছে: 2 বার।

আ.জা.ডেক্সঃ

ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে দল মনোনীত মেয়রপ্রার্থী তাবিথ আউয়ালের জন্য ভোট চাইলেন মির্জা বিএনপি মহাসচিব ফখরুল ইসলাম আলমগীর। ঢাকায় আনুষ্ঠানিক প্রচার শুরুর দশদিন পর এই প্রথম দলের সর্বোচ্চ পর্যায়ের কোনো নেতা ধানের শীষের প্রার্থীর পক্ষে ভোট চাইতে নামলেন। গতকাল সোমবার সকাল সাড়ে ১০টায় ৭ নম্বর ওয়ার্ডে মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামের পাশে বাইতুল মোশাররফ জামে মসজিদের কাছ থেকে বিএনপি মহাসচিব গণসংযোগ শুরু করেন। সেখানে সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে বিএনপি মহাসচিব বলেন, এই নির্বাচনকে আমরা আমাদের দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির জন্যে, গণতন্ত্রের মুক্তির জন্যে একটা চ্যালেঞ্জ হিসেবে নিয়েছি, জনগণকে এখানে সম্পৃক্ত করবার আন্দোলন হিসেবে আমরা নিয়েছি। এই নির্বাচনের মধ্য দিয়ে বিএনপি জনগণকে সংগঠিত করে গণতান্ত্রিক আন্দোলনের পক্ষে নিয়ে যেতে চায়। তাবিথের আউয়ালের বিজয়ের আশাবাদ ব্যক্ত করে তিনি বলেন, যে গণজোয়ার সৃষ্টি হয়েছে। আমরা মনে করি অবাধ সুষ্ঠু নির্বাচন হলে অবশ্যই তাবিথ আউয়াল বিপুল ভোটে বিজয়ী হবে। নির্বাচন কমিশনের সমালোচনা করে ফখরুল বলেন, এই নির্বাচন কমিশন এখন পর্যন্ত তাদের যে দায়িত্ব তা সুচারুরূপে পালন করতে পারেনি। নির্বাচনের তারিখ পরিবর্তন তাদের অযোগ্যতার আরেকটা প্রমাণ। তাদের দেখা উচিত ছিল এই তারিখের সাথে স্বরস্বতী পূজার বিষয়টা সম্পর্কিত। পরে তাবিথ আউয়ালকে নিয়ে মির্জা ফখরুল হেঁটে হেঁটে ভোটারদের কাছে যান। এ সময় রাস্তার দুই পাশে নানা বয়সের মানুষের হাতে ধানের শীষ প্রতীকের প্রার্থীর লিফলেট তুলে দেন তিনি। ধানের শীষ হাতে নিয়ে তাবিথও রিকশাচালক, ঠেলাগাড়ি চালক, দোকানদার, পথচারীর কাছে গিয়ে দোয়া ও ভোট চান। এ সময়ে এই সড়কে মানুষের ঢল নামে। নেতাকর্মীরা তুমুল করতালি দিয়ে ‘তাবিথ ভাই এগিয়ে চলো, মীরপুরবাসী তোমার সাথে’; ‘মুক্তি মুক্তি মুক্তি চাই, খালেদা জিয়ার মুক্তি চাই’ ইত্যাদি স্লোগান দেয়। বিএনপি মহাসচিব ৪৫ মিনিট নির্বাচনি প্রচারণা চালানোর পর দলের কার্যালয়ের উদ্দেশ্যে রওনা দেন। এসময় তাবিথ আউয়াল বলেন, আমরা যখনই প্রচারণা শুরু করি ব্যাপক সাড়া পাচ্ছি। প্রতিদিন পরিস্থিতি পরিবর্তন হচ্ছে। আমাদের সঙ্গে জন সম্পৃক্ততা বাড়ছে, আমরা দেখছি জনমত আমাদের পক্ষে রয়েছে, সাধারণ জনগণের পক্ষে রয়েছে। আমরা মনে করি পরিস্থিতি ১ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত এরকম থাকলে, ভোটাররা ভোট দিতে পারলে আমাদের বিজয় সুনিশ্চিত। তাবিথ আউয়াল বলেন, জাতীয়বাদী দলের বড় চ্যালেঞ্জ হচ্ছে গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনা, সাধারণ মানুষের ভোটের অধিকার ফিরিয়ে আনা, দেশের সার্বিক রাজনীতিক পরিস্থিতি স্থিতিশীলতার মধ্যে নিয়ে আসা, যেন সব রাজনীতিক দল জনকল্যাণে কাজ করতে পারে। তিনি বলেন, আমাদের দেশের জন্য কাজ করতে হবে। আগামীতে ঢাকাবাসীকে ঐক্যবদ্ধ করে আমরা সব চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করবো। তিনি বলেন, আমরা দুর্নীতি, দুঃশাসন, ডেঙ্গু ও দূষণ থেকে যেমন মুক্তি চাই, সেভাবে আমরা চাই দেশনেত্রী খালেদা জিয়া মুক্ত হয়ে আমাদের মাঝে ফিরে আসুক। গত ১০ জানুয়ারি তাবিথ আউয়াল উত্তরার ৭ নম্বর সেক্টারের মসজিদে জুমার নামায আদায় করে সেখান থেকে তার আনুষ্ঠানিক নির্বাচনি প্রচারণা শুরু করেন। আগামী ১ ফেব্রুয়ারি ঢাকা উত্তর ও দক্ষিণ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র ও কাউন্সিলর পদে ভোটগ্রহণ হবে। ঢাকা সিটি নির্বাচনে মেয়র পদে উত্তরে তাবিথ আউয়াল এবং দক্ষিণে ইশরাক হোসেন বিএনপির ধানের শীষ নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন।